গত কয়েকদিন আগে রাজ কুন্দ্রার বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ ওঠে, এরপর তাকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর থেকেই বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দুতে বলিউড অভিনেত্রী শিল্পা শেঠি। এমনকি এই অভিনেত্রীও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সন্দেহের নজরে বলে শোনা যাচ্ছে। এদিকে, এই অভিনেত্রীকে ইতিমধ্যে একটি অনুষ্ঠান থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে। এই অভিনেত্রী বর্তমানে তার বোনের বাসায় রয়েছেন। তিনি দীর্ঘ কয়েক বছর ধরে সকল অভিনয় থেকে দূরে ছিলেন। দীর্ঘ সাত বছর পর এই অভিনেত্রী নতুন একটি সিনেমায় ফিরেছেন। তবে এর মধ্যে তার স্বামীর কান্ডে সেই সিনেমা নিয়ে নতুন একটি সমস্যা দেখা দিল।


ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ডিজনি প্লাস হটস্টারে মুক্তি পেল ’হাঙ্গামা টু’। এই ছবির সঙ্গে দীর্ঘ সময় পর ছবির জগতে কামব্যাক করলেন শিল্পা। কিন্তু এই ফিরে আসাটা মোটেই সুখকর হল না অভিনেত্রীর কাছে।

একটা ছবি তৈরির পিছনে বহু মানুষের পরিশ্রম থাকে। কাস্ট থেকে শুরু করে পর্দার পিছনের নেপথ্যের নায়করা, একটা ছবি তৈরির জন্য অঢেল টাকা ঢালেন প্রযোজকরা। ছবির ব্যবসার সঙ্গে সবচেয়ে বেশি জড়িয়ে প্রযোজকদের স্বার্থ, সে কথা অস্বীকার করবার কোনও জায়গা নেই। শিল্পার ব্যক্তিগত জীবনে নেমে আসা বিতর্কের আগুনে যেন পুড়ে ছারখার না হয়ে যায় ’হাঙ্গামা টু’ সেই নিয়ে সচেতন এই অভিনেত্রী। তাই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দর্শকদের উদ্দেশ্যে জানালেন কাতর আর্জি।

এদিন টুইট বার্তায় শিল্পা জানান, ’আমি যোগে বিশ্বাস করি এবং অনুশীলন করি, যোগশা’স্ত্রে বলা হয়, জীবনের একমাত্র উপস্থিতি হচ্ছে বর্তমানে। হাঙ্গামা ২ একটা গোটা টিমের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফসল, তারা সকলে মিলে অসম্ভব খেটে এই ছবিটা বানিয়েছে এবং এই ছবিটার সমস্যায় পড়া উচিত নয়।’


’হাঙ্গামা ২’ ছবির সঙ্গে সাত বছর পর ছবির জগতে ফিরলেন শিল্পা
দর্শকদের উদ্দেশ্যে কাতর আর্জি জানিয়ে শিল্পা লিখলেন, ’আমি সকলের কাছে জোড় হাতে আবেদন জানাচ্ছি, এই ছবির সঙ্গে যুক্ত প্রতিটা মানুষের স্বার্থে, পরিবারের সঙ্গে বসে হাঙ্গামা ২ দেখুন, এবং মন খুলে হাসুন।’

উল্লেখ্য, ’হাঙ্গামা ২’ পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন প্রিয়দর্শন। আর এই ছবির সঙ্গে সাত বছর পর ছবির জগতে ফিরলেন শিল্পা। ২০১৪ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ’ঢিশকাঁও’ ছিল অভিনেত্রীর শেষ বক্স অফিস রিলিজ। ছবিতে শিল্পা ছাড়াও রয়েছেন পরেশ রাওয়াল এবং মিজান জাফরি।

এদিকে রাজ কুন্দ্রার গ্রেফতারির পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শিল্পা শেঠির এটা দ্বিতীয় পোস্ট। এর আগে শুক্রবার ভোরে ইনস্টাগ্রামে একটি পোস্ট করেন অভিনেত্রী। লেখক জেমস থারবারের একটি উক্তি ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে শেয়ার করেন শিল্পা। সেখানে লেখা রয়েছে, ’আমাদের যেখানে থাকার দরকার তা এই মুহুর্তে এখনই। কী হয়েছে বা কী হতে পারে তা নিয়ে উ’দ্বে’গ রয়েছে। আমি কৃতজ্ঞ যে আমি বেঁ’চে আছি। আমি জানি আমার ভবিষ্যৎ চ্যালেঞ্জে ভর্তি। কিন্তু তাও বর্তমানে আমাকে ভালভাবে বাঁ’চতে কেউ আটকাতে পারবে না।’


উল্লেখ্য, গত সপ্তাহের শুরুতে শিল্পা শেঠির স্বামী রাজ কুন্দ্রার বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠে যে সে খারাপ ছবি তৈরি করেন। আর এই অভিযোগ ওঠার পরই তাকে আইনশঙ্খলা বাহিনী গ্রেফতার করে। তাকে গ্রেফতার করার পর পরই ভারতের বিভিন্ন গণমাধ্যমে নানা রকম সংবাদ প্রকাশ পায়। অনেকে বলতে থাকেন এই খারাপ কাজের সঙ্গে আরও অনেকে জড়িত থাকতে পারে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এই বিষয়ে আরও খতিয়ে দেখছে।