এবার মামলা করতে আদালতে নগর বাউল জেমস

দেশে প্রায় সময় কিছু সংগীতশিল্পীরা অভিযোগ তোলেন তাদের কোনো অনুমতি না নিয়ে তাদের গান বিভিন্ন স্থানে কপিরাইট করা হয়। আর এই সকল কারণে বিব্রত বোধ করে সংগীতশিল্পীরা। এবার তেমনি দেশের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ও নগর বাউল জেমস অভিযোগ করেছেন তার অনুমতি না নিয়ে তার গান কপিরাইট করা হয়েছে। এই বিষয়টি তিনি মানতে পারেনি। যার কারণে তিনি এবার আদালতে হাজির হয়েছে। আদালতের অতিরিক্ত সরকারি কৌঁসুলি গণমাধ্যমের গঙ্গে এই বিষয়ে কথা বলেছেন। এ সময় তার সঙ্গে তার আইনজীবী ছিল। এবার এই বিষয়ে বিস্তারিত সংবাদ প্রকাশ পেল।

বাংলালিংকের বিরুদ্ধে গান কপিরাইটের অভিযোগে ঢাকার নিম্ন আদালতে মামলা করতে এসেছিলেন মাহফুজ আনাম জেমস। আজ রবিবার ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশের আদালতে মামলার আবেদন করেন।

এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট আদালতের অতিরিক্ত সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) তাপস কুমার পাল বলেন, ’জেমস আদালতে বাংলালিংকের বিরুদ্ধে কপিরাইট আইনে মামলার আবেদন করেন। শুনানিতে বিচারক গুলশান থানায় গিয়ে মামলা দায়েরের পরামর্শ দেন। তবে থানায় মামলা না নিলে আদালতে আসতে বলেন।’

এর আগে সকালে জেমস আদালতে আসেন। এরপর বেলা ১ টায় তিনি আইনজীবীর চেম্বার থেকে বের চলে যান। এসময় মামলার বিষয়ে জানতে চাইলেও তিনি সাংবাদিকদের কোন কথা বলেন নি। তবে এ বিষয়ে আইনজীবীর সাথে কথা বলতে বলেন।

জানা যায়, জেমসের অনুমতি ছাড়া তার গান নিজেদের নামে কপিরাইট করে রেখেছে বাংলালিংক। এ বিষয়ে জানার পর জেমস আদালতে উপস্থিত হয়ে মামলার আবেদন করেন।

উল্লেখ্য, দেশের এই জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী অসংখ্য গান গেয়েছেন। তার সেই সকল গান গুলো শ্রতাদের কাছে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে। তবে দেশে কারো অনুমতি না নিয়ে কোনো গান কপিরাইট করা নিষিদ্ধ। কিন্তু এবার বাংলালিংক এর বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে তারা এই সংগীতশিল্পীর গান কপিরাইট করেছে। এমনকি বাংলালিংক এই সংগীতশিল্পীর কোনো অনুমতি নেয়নি বলে জানা গেছে। আর এই কারণে এই জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী মামলা করতে আদালতে গেলেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *