লিওনেল মেসি আর্জেন্টিনার নামকরা খেলোয়াড়। লিওনেল মেসি শুধু আর্জেন্টিনায় নয় সারা বিশ্বে ব্যাপক জনপ্রিয়। সারা বিশ্বের সব খেলোয়াড়ের মধ্যে একাধিক বার সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। এছাড়া সারা বিশ্বে লিওনেল মেসি কোটি কোটি ভক্ত রয়েছে। যারা লিওনেল মেসির সাথে দেখা করার জন্য হুমরি খেয়ে পরে। লিওনেল মেসির ভক্ত বাংলাদেশও অনেক রয়েছে। এবার বাংলাদেশি এক ভক্ত লিওনেল মেসির বাড়িতে গেলেন।
ভালোবাসার টানে প্যারিস থেকে স্পেনের বার্সেলোনাতে গিয়ে মেসির খেলা উপভোগ করেছেন নোয়াখালীর শহীদুল কবির। শুধু স্পেনে গিয়েই ক্ষান্ত হননি এই যুবক, নিজে নিজে খুঁজে বের করেছেন রেকর্ড ষষ্ঠ ব্যালন ডি’অর বিজয়ী লিওনেল মেসির বাড়িও!

ফ্রান্সের প্যারিস থেকে মেসির ভালোবাসার টানে স্পেনে পাড়ি জমান বাংলাদেশের নোয়াখালী জেলার মোহাম্মদ শহীদুল কবির। ৮ ডিসেম্বর, বার্সা বনাম মায়োর্কার মধ্যকার খেলা উপভোগ করার জন্যই তিনি সহধর্মীনিসহ গিয়েছিলেন স্পেনে।

খেলা মাঠে গড়ানোর আগের দিনই ঘুরে দেখেছিলেন বার্সার ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যু। কিন্তু মেসির বাড়ি খুঁজে বের করা তার জন্য ছিল এক কঠিন পরীক্ষা। যদিও পরিশেষে নিজের স্ত্রীকে নিয়ে পাহাড় বেয়ে আবিষ্কার করেন মেসির বাড়িও।

শহীদুলের ভাষ্যমতে, ’বিচের পাশে বাস থেকে নেমেই হাঁটা শুরু করি। কতটা কষ্ট হয়েছে সে কথা বলে বোঝানো যাবে না। অনেক দূর যাওয়ার পর আমার স্ত্রীই আমাকে বলে একটি বাড়ির কথা, যেখানে স্টেডিয়ামের মতো লাইট দেখা যাচ্ছিল। চোখে ভেসে উঠল মেসির বাড়ির মাঠ। এইতো এটাই মেসির বাড়ি। আমার খুশি দেখে কে।’

এরপর শহীদুল চলে যান মেসির বাড়ির সামনে এবং গেটের সামনে গিয়ে দাঁড়ানোর সঙ্গে সঙ্গেই গেট খুলে যায়। গার্ড বের হয়ে এসে শহীদুলকে বলল, ’হোলা’। এরপর স্প্যানিশ ভাষায় যা বলল তাতে বুঝলাম এখানে দাঁড়ানো যাবে না। আমি জানতে চাইলাম এইটা কি মেসির বাড়ি? সে বলল, হ্যাঁ। বললাম, ছবি তুলে চলে যাব।’

’সাধারণত ছবি তুলতে দেয় না কিন্তু আমি ইংলিশে কথা বলায় বুঝেছে আমি অন্য কোথাও থেকে এসেছি, তাই বলল- ওকে একটা ছবি। হাসি মুখে ধন্যবাদ জানালাম।’

নিজের ইচ্ছা পূরণ হওয়ায় ব্যাপক খুশি বাংলাদেশের এই তরুণ। শহীদুলের মতে ’অনেকের কাছে এসব হাসির কাজ, পাগলামি কিন্তু আমার কাছে এসব হচ্ছে স্বপ্ন পূরণ করা আর যেটা সবার পক্ষে সম্ভব হয় না।’

উলেখ্য, লিওনেল মেসি এর আগে বাংলাদেশে এসে ফুটবল খেলেছেন। তখন তিনি বলেছেন বাংলাদেশের মানুষ খুব ভালো। আমি আবারও বাংলাদেশে আসবো। তবে তিনি একাধিক বার বিশ্বের সেরা পুরস্কার পেলেও এখনও বিশ্বকাপ জয়ি করতে পারেনি। তবে লিওনেল মেসি হাল ছাড়েননি। তিনি এখনও নিজ দেশ আর্জেন্টিনার হয়ে খেলে যাচ্ছেন। তিনি আশ করছেন আগামি বিশ্বকাপে দলের জন্য ভালো কিছু বয়ে আনবেন। লিওনেল মেসি ভক্তরা এখনও তার উপর ভরসা রেখেছেন।