বর্তমান সময়ে চীনে নতুন করোনা ভাইরাসের প্রভাবে সারা বিশ্বের বেশ কিছু দেশ এখন পর্যন্ত চীনের সাথে সকল রকম যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে। এছাড়া বর্তমানে সময়ে চীন অনেক বড় সমস্যার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। এদিকে, চীনে এখনও অনেক বাংলাদেশি রয়েছে যারা দেশে ফিরতে চান। এই সকল বাংলাদেশিদের বিষয়ে দেশের বিভিন্ন লোক নানা রকম কথা বলছেন। এবার অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এই বাংলাদেশিদের বিষয়ে কথা বলেছে। তিনি বলেন, চীনে যে সকল বাংলাদেশি রয়েছে তাদেরকে দেশে ফিরিয়ে আনার জন্য টাকার অভাব নেই।

অভাব থাকার কোনো কারণও নেই। তাই টাকার অভাবে নয়, অন্য কারণে চীন থেকে বাংলাদেশিদের এ মুহূর্তে সরকারিভাবে দেশে ফেরানো হচ্ছে না।

আজ বুধবার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে বাংলাদেশ-সৌদি আরব যৌথ কমিশনের (জেসি) ১৩তম সভা শেষে এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

টাকার অভাবে চীন থেকে দেশে ফেরানো যাচ্ছে না পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এমন কথার বিষয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, আমরা চীন থেকে তিন থেকে ৪০০ জনকে এ পর্যন্ত দেশে এনেছি। যেসব পাইলট ও কেবিন ক্রু চীনে গিয়েছিলেন, তাদের কোনো দেশে ঢুকতে দিচ্ছে না। এমনকি আমাদের সেই প্লেনটিও অন্য কোনো দেশে যেতে পারছে না। সুতরাং টাকার কারণে তাদের আনতে পারছি না বিষয়টা এমন নয়। আমাদের টাকার কোনো অভাব নেই।

তিনি বলেন, যারা চীন থেকে এসেছেন, তারা এখন পর্যন্ত সিঙ্গাপুরে যেতে পারছেন না। ক্যাপ্টেন, ক্রু তারা সবাই যেন জেলে বাস করছে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) সচিব মনোয়ার আহমেদ, সৌদি শ্রম মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী মাহির আব্দুল রাহমান গাসিম, আরামকোর বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার এক্সপার্ট জুলিও সি হেজেলমেয়ার মোসেস প্রমুখ।

উল্লেখ্য, চীনে অনেক বাংলাদেশি শিক্ষার্থী রয়েছে যারা দেশে আসার জন্য অনেক চেষ্টা করছে। দেশে ফিরে আসার জন্য এই সকল বাংলাদেশি শিক্ষার্থীরা প্রায় সময় বিভিন্ন মাধ্যমে দেশে তাদের পরিবারের সাথে যোগাযোগ করেন। এছাড়া এই সকল শিক্ষার্থীরা প্রায় সময় তাদের সমস্যার কথা তুলে ধরেন। তাই এবার চীনে থাকা এই সকল বাংলাদেশিদের সম্পর্কে কথা বলেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। তিনি বলেন, টাকার জন্য নয়, অন্য কারণে চীন থেকে বাংলাদেশিদের দেশে আনা সম্ভাব হচ্ছে না।