দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে প্রায় সময় অভিযোগ ওঠে আবাসিক হোটেলে তরুণীদের দ্বারা খারাপ কাজ করানো হয়। তবে এই সকল অভিযোগ উঠলেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী অভিযান পরিচালনা করে থাকে। তেমনি এবার একটি আবাসিক হোটেল থেকে অভিযোগ ওঠার পর সেখানে অভিযান পরিচালনা করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। আর এই আবাসিক হোটেল থেকে এক সাথে ৮ তরুণ-তরুণী আটক করা হয়েছে।

অসামাজিক কর্মকাণ্ডের অভিযোগে বগুড়ায় একটি আবাসিক হোটেলে অভিযান চালিয়ে ৮ তরুণ-তরুণীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (১৮ জানুয়ারি) দুপুরে আদমদীঘি উপজেলার সান্তাহার রেলওয়ে জংশনের টিকেট ঘরের পশ্চিম পাশে শুভ আবাসিক হোটেল থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়েরের পর জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতাররা হলেন- মহাদেবপুর মাস্টারপাড়ার ইসমাঈলের ছেলে হাবিব হোসেন (১৮), মহাদেবপুরের কুন্দনার জোহার ছেলে সৈকত (২৫), মহাদেবপুরের উত্তরগ্রাম মাস্টারপাড়ার মজিদের ছেলে ইমাম (১৯), একই গ্রামের খোরশেদের ছেলে আরিয়ান (১৯) ও মহাদেবপুর ঘোষপাড়ার সালাম উদ্দীনের ছেলে আতিক (১৯)।

পুলিশ জানায়, ওই হোটেলে অসামজিক কার্যকলাপ হয় এমন অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে আপত্তিকর অবস্থায় ৮ তরুণ-তরুণীকে আটক করা হয়েছে।

আদমদীঘি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জালাল উদ্দীন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, অভিযানের সময় হোটেল ম্যানেজার কৌশলে পালিয়ে যান। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে জেল হাজতে পাঠানো হয়।

এদিকে, দেশের অনেক স্থানে আবাসিক হোটেল থেকে প্রায় সময় অসামাজিক কার্যকলাপের অভিযোগ উঠে আসে। কিছু তরুণীদের মাধ্যমে খারাপ উপায়ে অর্থ উপার্জন করে থাকে বলে অভিযোগ ওঠে। তবে এই সকল অভিযোগ উঠলেই সেখানে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী অভিযান পরিচালনা করে থাকেন। তেমনি এই আবাসিক হোটেলে অভিযান চালিয়ে এক সাথে ৮ তরুণ-তরুণী কে আটক করা হয়েছে।